প্রথম পাতা > আন্তর্জাতিক, খাদ্য, বাংলাদেশ > লন্ডনে অনুষ্ঠিত হলো কারি ফেস্টিভ্যাল

লন্ডনে অনুষ্ঠিত হলো কারি ফেস্টিভ্যাল

নভেম্বর 1, 2016 মন্তব্য দিন Go to comments

bricklane-curry-festivalজুয়েল রাজ : টাওয়ার হ্যামলেট কাউন্সিলের উদ্যেগে, কারি ক্যাপিটাল হিসেবে সারাবিশ্বে পরিচিত ব্রিকলেইনে রোববার অনুষ্ঠিত হলো কারি ফেস্টিভ্যাল। এতে বিপুল সংখ্যক দর্শনার্থী ও কারি প্রিয় বিভিন্ন পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন। বাংলাদেশ সময় রোববার সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় শুরু হয়ে রাত সাড়ে ১২টায় শেষ হয় কারি ফেস্টিভ্যাল।

হ্যালোউইন থিমকে উপজীব্য করে আয়োজিত বিনোদন কর্মসূচির মধ্যে ছিল বিশালাকৃতির রণপা ডাইনিদের প্রদক্ষিণ, মুখে রং লাগানো, চারু ও কারুশিল্প এবং ভুতুড়ে হ্যালোইন কর্মশালা ইত্যাদি। কারি উৎসব রাস্তায় উপমহাদেশীয় মুখরোচক খাবারের স্বাদ গ্রহণের সুযোগ পান পথচারীরা এবং কারি হাউজগুলো দেয় বিশেষ অফার।

পাশাপাশি চলে বাংলা, ব্রাস ড্রাম সঙ্গীতের সুরের মূর্ছনা। ছিল কমিউনিটি স্টল এবং শিল্পীরা পরিবেশন করেন নানান ধরণের পারফর্মেন্স। ব্রিক লেনে ভিজিটরদের সংখ্যা বাড়ানোর মাধ্যমে এই এলাকায় বিনিয়োগ বাড়ানো ও এলাকার সুনাম বৃদ্ধির লক্ষ্যে টাওয়ার হ্যামলেটস’ কাউন্সিল স্থানীয় ব্যবসায়ী সম্প্রদায়ের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করে যাচ্ছে বলে জানালেন ব্রিকলেই কারী ব্যবসায়ী সংগঠনের সভাপতি গোলজার আহমদ ও সাধারণ সম্পাদক আব্দুস শহিদ।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন স্থানীয় এমপি রোশনারা আলী, টাওয়ার হ্যামলেটসের মেয়র জন বিগস, জিএলএ মেম্বার উমেশ দেশাই, কেবিনেট মেম্বার ফর ওয়ার্ক অ্যান্ড ইকনোমিক গ্রোথ, কাউন্সিলর জসূয়া প্যাক।

জন বিগস বলেন, কারির জন্য ব্রিক লেনের বিশ্ব খ্যাতির কারনে প্রতি বছর লক্ষ লক্ষ মানুষ এই এলাকা ভিজিট করেন, যা স্থানীয় ব্যবসা বাণিজ্য ও কর্মসংস্থানে বিশেষ ভূমিকা রাখছে।

কেবিনেট মেম্বার ফর ওয়ার্ক এন্ড ইকনোমিক গ্রোথ, কাউন্সিলর জসূয়া প্যাক বলেন, টাওয়ার হ্যামলেটসের পর্যটকদের কাছে আকর্ষনীয় স্থানগুলোর মুকুটের মণি হলো ব্রিকলেন। ব্রিক লেন যেন দেশি বিদেশ ভিজিটরদের কাছে আকর্ষনীয় স্থান হিসেবে সব সময় বিবেচিত হয়, তা নিশ্চিত করতে এবং স্থানীয় বিজনেসগুলোকে সহায়তা করতে আমরা কঠোর পরিশ্রম করে যাচ্ছি ।

ব্যবসায়ী ও রেস্টুরেটার্সদের সঙ্গে আমাদের কাজের প্রথম ফল হচ্ছে রোববার এই অনুষ্ঠান।

কোবরা বিয়ারের প্রতিষ্ঠাতা লর্ড বিলোমোরিয়া বলেন, স্পিটালফিহ্বস এর উইভার্স থেকে ট্রুম্যান ব্রোওয়ার্স, বাংলাদেশি সিলেটী কমিউনিটি এবং তাদের সুস্বাদু খাবার দাবার সব মিলিয়ে ব্রিকলেন কমিউনিটি ইতিহাসের উজ্জল অনুষঙ্গ। কারির জন্য ব্রিক লেনের সুনাম বিশ্ব ব্যাপী ছড়িয়ে পড়েছে। ব্রিক লেনের ইতিহাস ঐতিহ্য, সুনামের নানা দিক জানার ও উপভোগের এক সুবর্ণ সুযোগ হচ্চেছ এই ব্রিকলেন কারি ফেস্টিভ্যাল।

সূত্রঃ দৈনিক মানবকন্ঠ, ৩১ অক্টোবর ২০১৬

Advertisements
  1. কোন মন্তব্য নেই এখনও
  1. No trackbacks yet.

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: